মোহনপুরে রনি বাহিনীর অস্ত্র ঠেকিয়ে টাকা ছিনতাই

মোহনপুর প্রতিনিধি

0
21

রাজশাহীর মোহনপুরে অপ্রতিরোধ্য কিশোরগ্যাং লিডার রনি ও তার বাহিনী মিলে পোস্ট মাস্টারকে অস্ত্র ঠেকিয়ে টাকা ছিনতাই ও মারধরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ৪ ফেব্রুয়ারী শনিবার রাত ১০টার দিকে ধুরইল গ্রামে এঘটনা ঘটে। বিও পোস্ট মাস্টার সানোয়ার এখন মোহনপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

ভুক্তভোগী ও এলাকাবাসীর মাধ্যমে জানা যায়, ধুরইল ইউপির বিও পোস্ট মাষ্টার ধুরইল বাজার এলাকার মৃত ময়েজ উদ্দিন কাজির ছেলে সানোয়ার হোসেন (২৮) ধুরইল রিফুজি পাড়া মোড় থেকে মোটরসাইকেল যোগে নিজ বাড়ি যাওয়ার পথে আইডিয়াল কেজি স্কুলের সামনে পৌঁছামাত্র ধুরইল তালুকদারপাড়া এরশাদের ছেলে কিশোর গ্যাং লিডার রনি (২৮) ও তার বাহিনী দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে রাস্তার মাঝখানে দাড়িয়ে মোটর সাইকেলের গতিরোধ করে। কোন কিছু বুঝে উঠার আগেই তারা পোস্ট মাস্টারকে সানোয়ারকে চারিদিক থেকে এলোপাতাড়ি মারধোর শুরু করে। একপর্যায়ে সে মাটিতে লুটিয়ে পড়লে কিশোরগ্যাং সদস্য একই গ্রামের মৃত মাজের এর ছেলে আশরাফুল (২৭), সামাদের ছেলে স্বপন (২৬) ও মৃত রহিমদ্দিমনের ছেলে মিলন (৩২) মিলে অঙ্গাত ৬/৭ জন তার দেহের উপর চড়ে বসে এবং তার গলায় গামছা পেচিয়ে শ্বাসরোধসহ কিল-ঘুষি মারতে থাকে।

এসময় দেশীয় অস্ত্র রাম দা ঠেকিয়ে সানোয়ারের প্যান্টের ডান পকেটে থাকা ৭৫ হাজার ৭’শ ৫০ টাকা জোরপূর্বক বের করে নেয় রনি।

সানোয়ারের চিৎকারে আশে পাশের লোকজন জড় হতে থাকলে রনি ও তার বাহিনী তাকে রাস্তায় ফেলে রেখে চলে যায়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে মোহনপুর থানায় নিয়ে গেলে পুলিশ তাকে মোহনপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে চিকিৎসা নিতে বলেন। এঘটনায় জখমি সানোয়ারের ডান হাতের বৃদ্ধাংগুলি ভেঙে গেছে, বাম হাতের শাহাদাত আঙ্গুলে ৩টি সেলাই এবং তালুতে গুরুতর কাটা জখম। বাম পায়ের হাড় ফ্যাক্সার হয়েছে বলে জানা গেছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক দোকানদার ও ভুক্তভোগীরা জানান, এলাকায় এক মূর্তিমান আতঙ্কের নাম রনি। যার বিরুদ্ধ মাদক চোরাচালান, ছিনতাই, মারধোরসহ ৪/৫ টি মামলা রয়েছে। সে কন্টাকে মানুষকে মারধোর, ইয়াবা ব্যবসা পরিচালনা করে। তার বিরুদ্ধে এলাকায় কেউ মুখ খুলতে পারেনা যদিও বা কেউ মুখ খোলে সে তাকেও মারধোর করে ও ভয়ভীতি দেখায়। ধুরইল বাজারে তার যে দোকান আছে সে দোকানটি সরকারি রাস্তার বেশ কয়েকটি গাছ কেটে নির্মানসহ তার বাড়ির ফার্নিচার বানানো হয়েছে। তার একাজে ক্ষমতাসীন দলের কিছু কিছু নেতার প্রত্যক্ষ সমর্থণ থাকায় সে দিন দিন বেপরোয়া ও অপ্রতিরোধ্য হয়ে উঠছে। রনি ও তার বাহিনীর কারনে এলাকায় চুরি, ছিনতাই, চাঁদাবাজি ও মাদক ব্যবসা বেড়ে গেছে। যে কোন সময় ঘটতে পারে হত্যাকান্ডের মত ঘটনাও।

এবিষয়ে মোহনপুর থানা ভারপ্রাপ্ত ওসি মোহা.সেলিম বাদশাহ বলেন, ঘটনা শুনেছি। আহত সানোয়ারকে চিকিৎসা নিতে বলেছি। অভিযোগ পেলে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে