নিজস্ব প্রতিনিধিঃ রাজশাহীর দামকুড়া থানার  বেড়পাড়া নদীর ধারে এক ব্যক্তির ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ দুপুর ২ টায় সময় স্হানীয়দের সহায়তায় মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

মরদেহটি মৃত রেনু চন্দ্র দাসের ছেলে লিটন চন্দ্র দাসের (৩৫)।  সে বেড়পাড়া এলাকার স্হানীয় বাসিন্দা । লিটন পেশায় একজন গার্মেন্টসকর্মী ছিল। সে ও তার স্ত্রী ঢাকায় গার্মেন্টসে কাজ করতেন। গত মাসে সে ঢাকা থেকে চলে আসে। তাদের ঘরে ৮-১০ বছরের দুটি সন্তান রয়েছে।

এলাকাবাসী জানায়, গত ১ মাস থেকে লিটন মানসিকভাবে অসুস্থ ছিল। তার বউ সন্তানাদি নিয়ে তাকে ছেড়ে চলে গেছে। বউয়ের সন্ধান সে পাচ্ছিলো না।

হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মঞ্জিল জানায়, এর আগেও লিটন দু বার আত্নহত্যার চেষ্টা করেছিল। এবার একদম নির্জন জংগলে গিয়ে গলা দড়ি দেয়। তার চাচাতো ভাই আমার ইউনিয়ন পরিষদের চকিদার। বিষয়টি সে জানতে পেরে আমাকে খবর দিলে আমি পুলিশকে খবর দেই।

দামকুড়া থানার ওসি মাহাবুব জানায়, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রামেক হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে পারিবারিক অশান্তিতেই গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে সে। এ বিষয়ে থানায় একটি ইউডি মামলা দায়ের করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here